• জুন ১৬, ২০২১

বিদেশি ক্রিকেটারের জন্য অন্য দলের কাছে হাত পেতেছে রাজস্থান

ভারতে করোনাভাইরাসের ব্যাপক সংক্রমণের মাঝেও চলছে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) ১৪তম আসর। তবে পরিস্থিতি এতোটাই ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে যে, এবারের আসরে অংশ নেওয়া বিদেশি ক্রিকেটারদের দেশে ফেরা নিয়ে শঙ্কা দেখা দিয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে ইতোমধ্যে বেশ কয়েকজন বিদেশি ক্রিকেটার বায়ো-বাবল ছেড়ে পাড়ি জমিয়েছেন নিজ নিজ দেশ।

বিদেশি ক্রিকেটারদের চলে যাওয়াতে সবচেয়ে বেশি ক্ষতির মুখে পড়েছে রাজস্থান রয়্যালস। কেননা আসরের শুরু থেকে ইনজুরির কারণে নেই ইংলিশ ক্রিকেটার জোফরা আর্চার। ইনজুরির সমস্যায় এই আসরে খেলতে পারবেন না তিনি। মাত্র দুই ম্যাচে অংশ নিয়ে ইনজুরিতে পড়েছেন আরেক ইংলিশ অলরাউন্ডার বেন স্ট্রোকস। চার মাসের মতো মাঠের বাইরে থাকতে হবে এই ইংলিশ ক্রিকেটারকে।

এদিকে করোনা আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ার পর নিজ দেশে ফিরে গেছেন আরেক ইংলিশ ক্রিকেটার লিয়াম লিভিংস্টন। একই ভীতিতে অস্ট্রেলিয়ার বিমান ধরেছেন পেসার অ্যান্ড্রু টাই। আট বিদেশির চার বিদেশি দল ছাড়ার পর বিপাকে পড়েছে রাজস্থান। নিয়ম অনুযায়ী প্রত্যেক ম্যাচে একাদশে রাখতে হবে চার বিদেশিকে, আর তাদের আছেও মাত্র চার বিদেশি ক্রিকেটার। তাই বাধ্য হয়ে অন্য ফ্র্যাঞ্চাইজির কাছে খেলোয়াড় চেয়েছে তারা।

কেননা দলে থাকা চার বিদেশি মুস্তাফিজুর রহমান, জস বাটলার, ডেভিড মিলার আর ক্রিস মরিসদের মধ্যে কেউ কোনো প্রকার ইনজুরিতে পড়লে চরম সমস্যার মুখোমুখী হতে হবে রাজস্থানকে। এ ছাড়াও পারফরম্যান্স খারাপ করলে প্লেয়ারকে রোটেশন করেও খেলানোর সুযোগ পাবে না তারা।

এই আসরের লোন উইন্ডো খুলেছে রোববার। লিগ পর্যায় শেষ হওয়া পর্যন্ত তা খোলা থাকবে। দুটির বেশি ম্যাচ খেলেননি এমন ক্রিকেটারকে লোন উইন্ডোর মাধ্যমে এক দল থেকে অন্য দলে নিতে পারবে যে কোনো ফ্র্যাঞ্চাইজি। তবে তিনি যে দল থেকে অন্য দলে যাবেন, সেই দলের বিপক্ষে খেলতে পারবেন না। এটাই আইপিএলের নিয়ম। সেই নিয়মের মধ্যে থেকেই ক্রিকেটার ধার চেয়ে চিঠি দিয়েছে রাজস্থান।

READ  রেকর্ড গড়ে সেমিতে চেলসি

Pial

Read Previous

প্রথম চীনা নারী হিসেবে অস্কার জিতলেন ক্লোয়ি ঝাও

Read Next

ডাক্তার-পুলিশ বিতর্ক ও মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মান

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *