• জুন ২৫, ২০২১

৪১তম বিসিএস: পৌনে ৫ লাখ প্রার্থীকে যা যা মানতে হবে

৪১তম বিসিএস পরীক্ষা আগামীকাল শুক্রবার (১৯ মার্চ) অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। পৌনে পাঁচ লাখ প্রার্থীর এ পরীক্ষায় অংশ নেওয়ার কথা রয়েছে। করোনার সংক্রমণের হার বাড়ছে, বিসিএস পরীক্ষা হলে আক্রান্তের হার বাড়তে পারে, এমন আশঙ্কা করে পরীক্ষা স্থগিত চেয়ে ১০ প্রার্থী হাইকোর্টে রিট করেছিলেন। হাইকোর্ট সেই রিট খারিজ করে স্বাস্থ্যবিধি মেনে পরীক্ষা নিতে পিএসসিকে নির্দেশ দিয়েছেন।

পরীক্ষা কেন্দ্রে কী কী আনা যাবে আর কী কী আনা যাবে না, তা পরীক্ষার্থীদের এক দিন আগে অর্থাৎ আজ বৃহস্পতিবার এসএমএস করে জানিয়ে দিচ্ছে সরকারি কর্ম কমিশনের (পিএসসি)।

পিএসসির পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, পরীক্ষার সব প্রস্তুতি তারা গ্রহণ করেছেন। কঠোর স্বাস্থ্যবিধি মেনে পরীক্ষা নেওয়া হবে। এ জন্য ১১ দফা নির্দেশনাও দিয়েছে পিএসসি। সেগুলো সবাই মানতেই হবে। কোনো কেন্দ্রে যদি কোনো প্রার্থীর তাপমাত্রা বেশি থাকে, তাহলে তাঁকে অন্য হলে পরীক্ষা নেওয়ার নির্দেশনা দেওয়া আছে। এ ছাড়া চিকিৎসকও পরীক্ষাকেন্দ্র থাকবেন।

পিএসসি চেয়ারম্যান সোহরাব হোসাইন গতকাল বুধবার দুপুরে প্রথম আলোকে বলেছেন, ‘সব ধরনের প্রস্তুতি আমরা নিয়েছি। কেন্দ্রে যাঁরা থাকবেন, তাঁদের জন্য বেশ কিছু নির্দেশনাও দিয়েছি আমরা। সব মিলে আমাদের খুব ভালো প্রস্তুতি আছে।’
পিএসসির পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক (ক্যাডার) নূর আহমদ আজ বৃহস্পতিবার প্রথম আলোকে বলেন, অনেকে গুজব ছড়ানোর চেষ্টা করছে যে ৪১তম বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা হবে না। এসব গুজবে কান না দিতে আহ্বান জানান পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক। তিনি বলেন, স্বাস্থ্যবিধি মেনে যথা সময়ে ৪১তম বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

গত মঙ্গলবার পিএসসির ৪১তম বিসিএস কেন্দ্রের ব্যবস্থাপনায় থাকা সংশ্লিষ্টদের জন্য বেশ কিছু নির্দেশনা জারি করে। নির্দেশনায় বলা হয়েছে, প্রতিটি পরীক্ষার হলে পর্যাপ্ত আলো-বাতাসের ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে হবে। পরীক্ষার হলের বাইরে পরীক্ষার্থীদের হাত ধোয়ার ব্যবস্থা বা স্যানিটাইজারের ব্যবস্থা করতে হবে। পরীক্ষার হলে প্রবেশের সময় শরীরের তাপমাত্রা পরিমাপ করার জন্য নন-কন্ট্যাক্ট ইনফ্রারেট থার্মোমিটার থাকতে হবে। প্রতিটি পরীক্ষার হলে এবং কন্ট্রোলরুমে জীবাণুনাশকের ব্যবস্থা থাকতে হবে।

READ  সেনাবাহিনীতে চাকরির সুযোগ

পিএসসির ১১টি নির্দেশনায় বলা আছে, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সব এলাকা পরিষ্কার ও জীবাণুমুক্ত করতে হবে। স্বাস্থ্যবিধি পালনের বার্তাসংবলিত পোস্টার ফেস্টুনের মাধ্যমে প্রচার করতে হবে। অপেক্ষমাণ জনসমাগম নিয়ন্ত্রণ করতে হবে এবং সে ক্ষেত্রে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সহযোগিতা নেওয়া যেতে পারে। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ও বর্জ্য ব্যবস্থাপনার সুবিধা এবং পরিচ্ছন্ন পরিবেশ নিশ্চিত করতে হবে। পরীক্ষার্থীদের কমপক্ষে তিন ফুট দূরত্ব বজায় রেখে প্রয়োজনে গোল চিহ্ন দিয়ে দাঁড়ানোর স্থান নির্দিষ্ট করে দিতে হবে। মাস্ক ছাড়া কোনো পরীক্ষার্থী হলে প্রবেশ করতে পারবেন না। আসন ব্যবস্থায় দুজন পরীক্ষার্থীর মধ্যে কমপক্ষে তিন ফুট দূরত্ব থাকতে হবে। পরীক্ষার হলের বাইরে জনসমাবেশ পরিহার করতে হবে।

পরীক্ষার্থীদের জন্য নির্দেশনা
৪১তম বিসিএস পরীক্ষা-২০১৯-এর প্রকাশিত বিজ্ঞপ্তির শর্তানুযায়ী ১৯ মার্চ অনুষ্ঠেয় প্রিলিমিনারি পরীক্ষায় বইপুস্তক, সব রকম ঘড়ি, মুঠোফোন, ক্যালকুলেটর, ইলেকট্রনিক ডিভাইস, ব্যাংক/ক্রেডিট কার্ডসদৃশ কোনো ডিভাইস, গয়না, ব্যাগসহ পরীক্ষা হলে প্রবেশ করা নিষেধ এবং শাস্তিযোগ্য অপরাধ। তাই নিম্নবর্ণিত বিষয়গুলো ইতিপূর্বে পরীক্ষার্থীদের জানিয়ে দেওয়া হয়েছে—
ক.
পরীক্ষাকেন্দ্রে বইপুস্তক, সব রকম ঘড়ি, মুঠোফোন, ক্যালকুলেটর, সব ধরনের ইলেকট্রনিক ডিভাইস, ব্যাংক/ক্রেডিট কার্ডসদৃশ কোনো ডিভাইস, গয়না, ব্রেসলেট ও ব্যাগ আনা সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ। নিষিদ্ধ সামগ্রীসহ কোনো পরীক্ষার্থী পরীক্ষার হলে প্রবেশ করতে পারবেন না।
খ.
পরীক্ষার হলের গেটে অ্যাক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট ও পুলিশের উপস্থিতিতে প্রবেশপত্র এবং মেটাল ডিটেক্টরের সাহায্যে মুঠোফোন, ঘড়ি, ইলেকট্রনিক ডিভাইসসহ নিষিদ্ধ সামগ্রী তল্লাশির মধ্য দিয়ে পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষা হলে প্রবেশ করতে হবে।
গ.
পরীক্ষার দিন উল্লিখিত নিষিদ্ধ সামগ্রী সঙ্গে না আনার জন্য সব পরীক্ষার্থীর মুঠোফোনে এসএমএস পাঠানো হবে। এসএমএসের নির্দেশনা অনুসরণ করতে হবে।
ঘ.
পরীক্ষার সময় পরীক্ষার্থীরা কানের ওপর কোনো আবরণ রাখবেন না, কান খোলা রাখতে হবে। কানে কোনো ধরনের হিয়ারিং অ্যাইড ব্যবহারের প্রয়োজন হলে বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের পরামর্শপত্রসহ আগেই কমিশনের অনুমোদন গ্রহণ করতে হবে।

READ  চাকরির বয়স চলে যাচ্ছে অনেকের, ‘উদ্বিগ্ন’ তরুণরা

পরীক্ষার হলে কোনো পরীক্ষার্থীর কাছে বর্ণিত নিষিদ্ধ সামগ্রী পাওয়া গেলে তা বাজেয়াপ্তসহ বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিস (বয়স, যোগ্যতা ও সরাসরি নিয়োগের জন্য পরীক্ষা) বিধিমালা ২০১৪-এর বিধিভঙ্গের কারণে সংশ্লিষ্ট পরীক্ষার্থীর প্রার্থিতা বাতিলসহ ভবিষ্যতে কর্ম কমিশন কর্তৃক গৃহীতব্য সব নিয়োগ পরীক্ষার জন্য তাঁকে অযোগ্য ঘোষণা করা হবে।

পরীক্ষার দিন (১৯ মার্চ) বইপুস্তক, সব রকম ঘড়ি, মুঠোফোন, ক্যালকুলেটর, ইলেকট্রনিক ডিভাইস, ব্যাংক ক্রেডিট কার্ডসদৃশ কোনো ডিভাইস, গয়না ও ব্যাগ না আনার জন্য সংশ্লিষ্ট সব পরীক্ষার্থীকে পুনরায় বিশেষভাবে অনুরোধ করা যাচ্ছে। এ বিষয়ে বাংলাদেশ সরকারি কর্ম কমিশন সংশ্লিষ্ট সবার সার্বিক সহযোগিতা প্রত্যাশা করছে।
বিভিন্ন ক্যাডারে ২ হাজার ১৬৬ শূন্য পদে প্রার্থী নিয়োগ দিতে ২০১৯ সালে নভেম্বরে ৪১তম বিসিএসের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছিল। প্রায় পৌনে পাঁচ লাখ পরীক্ষার্থী এ বিসিএসে আবেদন করেছেন। এটা বিসিএসে আবেদনের ক্ষেত্রে একটি রেকর্ড। এই বছরের ১৩ জানুয়ারি ৪১তম বিসিএসের তারিখ ঘোষণা করে পিএসসি।

১৯ মার্চ সকাল ১০টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত ৪১তম বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। ঢাকা, চট্টগ্রাম, রাজশাহী, খুলনা, বরিশাল, সিলেট, রংপুর ও ময়মনসিংহ কেন্দ্রে একযোগে এই পরীক্ষা হবে।

পিএসসি বলছে, পৌনে পাঁচ লাখের মধ্য দুই লাখের বেশি প্রার্থীই ঢাকার বিভিন্ন কেন্দ্রে পরীক্ষায় অংশ নেবেন। বাকিরা দেশের অন্য কেন্দ্রগুলোতে পরীক্ষা দেবেন। ঢাকার বড় বড় কেন্দ্রগুলোতে তিন হাজারের মতো প্রার্থী পরীক্ষায় অংশ নেবেন।

Pial

Read Previous

মঙ্গলের ভূপৃষ্ঠের নিচে আটকে রয়েছে পানি

Read Next

খুশির খবরে মিষ্টি বিতরণের বিধান

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *